মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১৯ অক্টোবর ২০২০

আমদানি ও রপ্তানি নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উত্তম চর্চার বিষয়ে অংশীজনদের সাথে মতবিনিময় সভা


প্রকাশন তারিখ : 2020-10-05
প্রেস বিজ্ঞপ্তি
তারিখঃ ৫/১০/২০২০
 
আমদানি ও রপ্তানি নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উত্তম চর্চার বিষয়ে অংশীজনদের সাথে মতবিনিময় সভা গত ৫ অক্টোবর, ২০২০ অনলাইন প্লাটফর্মে (জুম অ্যাপস) অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন প্রধান নিয়ন্ত্রক জনাব প্রাণেশ রঞ্জন সূত্রধর। FBCCI এর পরিচালক মোঃ মনির হোসাইন, বিকেএমইএ এর ভাইস প্রেসিডেন্ট মোঃ হাতেম,মনজুর আহমেদ, উপদেষ্টা, বিপিজিএমইএ,বেসিস সভাপতি সৈয়দ আলমাস কবির, আঞ্চলিক দপ্তর প্রধানসহ বিভিন্ন অংশীজন সভায় অংশগ্রহণ করেন। সভাপতি মহোদয় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ পরিবারের সকল শহীদ সদস্য এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করে সভা শুরু করেন। শুরুতেই দপ্তর কর্তৃক গৃহীত উত্তম চর্চার বিষয়ে সবাইকে অবগত করেন। অফিসের কর্মপরিবেশ, সিসিটিভির আওতায় দপ্তরের কর্মকান্ড মনিটরিং বিষয়ে, হেল্প ডেস্ক, সেন্ট্রাল এসি, সেবাগ্রহীতাদের জন্য আরামদায়ক বসার যায়গা, ডে কেয়ার সেন্টার স্থাপন বিষয়ে অবগত করা হয়। সেবা সমূহ সহজীকরণের লক্ষ্যে চালুকৃত অনলাইন সেবা OLM সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা হয়। তিনি বলেন সেবাগ্রহীতাদের সুবিধার জন্য OLM বিষয়ক মেলার আয়োজন করা হয়েছে এবং এ সম্পর্কিত ভিডিও ওয়েবসাইটে আপলোড করে দেয়া হয়েছে। প্রথমবারে নানা সীমাবদ্ধতা স্বত্ত্বেও গত অর্থবছরে ওএলএমের মাধ্যমে ৮৮% সেবা প্রদান করা সম্ভব হয়েছে এবং বাকী ১২% সেবা প্রদান না হওয়ার পিছনে অবশ্য সেবাগ্রহীতা কর্তৃক দাখিলকৃত আবেদনে ডকুমেন্টস এর ঘাটতি, সিস্টেমে সমস্যাকেই দায়ী। ২৮৭ জন জনবলের পরিবর্তে মাত্র ৯৬ জন জনবল নিয়ে অত্র দপ্তর এই অনলাইন সেবা প্রদানে সফল হয়েছে। প্রথমে ওএলএম এর মাধ্যমে সনদ নিবন্ধন পরিপূর্ণ চালু করলেও স্থায়ী আইটি ফার্ম না থাকায় আইপি ইপি এখনও চালু করতে পারিনি। তবে শীঘ্রই আইটি ফার্ম নিয়োগের মাধ্যমে আমরা সব সেবাসমূহ অনলাইনে প্রদান করতে পারব। তিনি বলেন অবশ্য ওএলএম এ আইপি ইপি চালু না হলেও ই নথির মাধ্যমে আইপি ইপি এর সেবা প্রদান করা হচ্ছে। অনলাইন সেবা ওএলএম এ কোন সেবাগ্রহীতা কোন সমস্যার সম্মুখীন হলে যাতে দ্রুত সমাধান পেতে পারেন এই জন্য চালু করা হয়েছে Query Box। আরো দ্রুততার সাথে সেবা প্রদানের লক্ষ্যে বিভিন্ন দপ্তরের সাথে অনলাইন ইন্টিগ্রেশনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। অনলাইন ইন্টিগ্রেশন এর লক্ষ্যে ইতিমধ্যে বিডা,জাতীয় রাজস্ব বোর্ড, হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষ এর সাথে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর হয়েছে এবং শীঘ্রই সোনালী ব্যাংক, বাংলাদেশ ব্যাংক এর সাথে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করা হবে। আশা করা যাচ্ছে অনলাইন ইন্টিগ্রেশন সম্পন্ন হলে ১ ঘন্টা ৪০ মিনিটে সেবা প্রদান সম্ভব হবে মর্মে অবহিত করা হয়।

Share with :

Facebook Facebook